Site icon TipsWali

চুল সিল্কি করার ১০টি উপায়, খাবার ও টিপস

https://tipswali.com/wp-content/uploads/2021/10/how-to-make-hair-silky-bangla.jpg

স্বাস্থ্যকর চুলের প্রধান লক্ষন হচ্ছে- নরম, ঘন এবং চকচকে চুল। তবে সবাই সিল্কি চুল নিয়ে না জন্মালেও সিল্কি চুল সবার পছন্দের। আবার আপনার সিল্কি চুলও শুষ্ক ও ভঙ্গুর হয়ে যেতে পারে যদি আপনি চুলের সঠিক যত্ন না নেন বা চুল সিল্কি করার জন্য ভুল উপায় অবলম্বন করেন। পাশাপাশি আপনি যে খাবার খাচ্ছেন, চুলের যত্নে যে সকল পন্য ব্যবহার করছেন এগুলোও প্রভাব ফেলে।

প্রিয় ভিজিটর, ইন্টারনেটে চুল সিল্কি করার উপায় লিখে সার্চ করলে হাজার হাজার টিপস চলে আসে তবে সঠিক বলতে আসলেই কি সঠিক কিছু পাচ্ছেন? নাকি চুল সিল্কি করার ভুল উপায় অবলম্বন করছেন?

সম্মানিত ভিজিটর, আজকের লেখাজুড়ে আমি আপনাদের সাথে শেয়ার করতে যাচ্ছি চুল সিল্কি করার ১০টি কার্যকরী উপায় ও টিপস, এবং চুল সিল্কি করতে যেসব খাবার খাওয়ায় উচিত এ সম্পর্কে বিস্তারিত।

Table of Contents

১. চুল সিল্কি করতে উষ্ণ গরম তেল ব্যবহার

নারিকেল তেল, অলিভ অয়েল, বা ক্যাস্টর অয়েল সামান্য গরম করুন এবং কয়েক মিনিট আপনার চুলে আলতো করে ম্যাসাজ করুন। এপর্যায়ে চুল বেধে শাওয়ার ক্যাপ দিয়ে কাভার করে নিন। এবার সহ্য করতে পারেন এমন সামান্য গরম পানিতে তোয়ালে ডুবিয়ে চুলে মোড়ান। ১০ মিনিট এভাবে রাখুন এবং শ্যাম্পু করে চুল ধুয়ে ফেলুন। চুলে কন্ডিশনার ব্যবহার করুন।

২. সঠিক পন্য নির্বাচন

স্কিনের যেমনি নানা ধরন আছে তেমনি চুলেরও ভিন্ন ভিন্ন ধরন আছে। আপনার চুলের ধরন অনুসারে শ্যাম্পু, কন্ডিশনার ও তেল কিনুন ও ব্যবহার করুন।

৩. প্রতিদিন শ্যাম্পু করা বাদ দিন

আমাদের অনেকেই চুলের যত্নে বা চুল পরিষ্কার রাখতে চুলে প্রতিদিন শ্যাম্পু করেন। আমাদের চুলে একধরনের তেল থাকে আর এই কারনে প্রতিদিন শ্যাম্পু করলে চুলের তেল কমে যেতে পারে। তাই প্রতিদিন শ্যাম্পু করার পরিবর্তে সপ্তাহে দুই বা দিন তিন বার শ্যাম্পু করুন। আবার আপনার চুল যদি তৈলাক্ত হয় তবে ড্রাই শ্যাম্পু ব্যবহার করুন। বাজারে ড্রাই শ্যাম্পু কিনতে পাওয়া যায়। শ্যাম্পু করার সময় খেয়াল রাকবেন শ্যাম্পু যেন মুখের স্কিনে না লাগে।

৪. কন্ডিশনার ব্যবহার করুন

নিয়মিত কন্ডিশনার ব্যবাহার করুন। শ্যাম্পু করার পর চুল ভালো করে ধুয়ে ফেলুন। শুধু মাত্র চুলের ডগায় মাথার স্কিনে না। কন্ডিশনার আপনার চুলের আদ্রতা বন্ধ করতে সাহায্য করে। পাশাপাশি এটি আপনার চুলকে ঢ়দের হাত থেকে রক্ষা করবে।

৫. কন্ডিশনার ধুয়ে ফেলুন

কন্ডিশনার ব্যবহার করার পর ধুয়ে ফেলতে হয়। তাই কন্ডিশনার ব্যবহার করার পর ঠাণ্ডা পানি দিয়ে চুল ধুয়ে ফেলুন।

৬. চুল সিল্কি করতে নিয়মিত তেল ব্যবহার করা

আমাদের অনেকেই নিয়মিত চুলের তেল ব্যবহার করি না। আপনার চুল যদি শুষ্ক হয়ে থাকে তবে শ্যাম্পু করার অন্তত ১ ঘণ্টা আগে চুলে তেল না দিয়ে চুল ধুয়ে ফেলবেন না। আপনি আপনার চুলে যেকন স্বাস্থ্যকর তেল ব্যবহার করতে পারেন। যেমন- নারিকেল তেল, জলপাই তেল, বাদাম তেল বা আর্গান তেল। তেল দিয়ে মাথা ম্যাসার করুন। শুষ্ক মাথার স্কিনের জন্য তেল দিয়ে ম্যাসাজ করা বিশেষভাবে ভালো। আপনার মাথার ত্বক তৈলাক্ত হলে কেবল চুলের আগার দিকে তেল লাগান।

৭. হেয়ার মাস্ক ব্যবহার করুন

চুলে সপ্তাহে একবার হেয়ার মাস্ক ব্যবহার আপনার চুলের তেল ধরে রাখতে সাহায্য করতে পারে। বাজারে নানা ধরনের হেয়ার মাস্ক কিনতে পাওয়া যায়। প্রথমে চুলের ১ ঘণ্টা হেয়ার মাস্ক দিয়ে রাখুন, এর পর শ্যাম্পু দিয়ে ধুয়ে ফেলুন এবং চুলে কন্ডিশনার ব্যবহার করুন।

৮. চুলে গরম পানি ব্যবহার করা থেকে বিরত থাকুন

আমাদের মধ্যে অনেকেই বিশেষ করে শীতের দিনে গরম পানি দিয়ে গোসল করে। এই সময়ে মাথায়ও গরম পানি ঢালে। চুলের সৌন্দর্য ধরে রাখতে চুলে গরম পানি ব্যবহার করা থেকে বিরত থাকুন। তবে সামান্য কুসুম গরম পানি ব্যবহার করা যেতে পারে। বিশেষজ্ঞের মতে নরমাল পানি ব্যবহার করা ভালো।

৯. রোদে পোড়া থেকে চুলকে রক্ষা করুন

আপনার চুলে রোদ লাগা হতে পারে আপনার চুল নষ্ট হওয়ার অন্যতম কারন। আপনি যখনই দিনের বেলা (রোদ থাকাকালীন) বাইরে বেড় হন আপনার চুল স্কার্ফ দিয়ে ঢেকে রাখুন। বোরখা বা হিজাব ব্যবহার করতে পারেন।

১০. চুল বাঁধার স্টাইল পরিবর্তন করুন

আপনার চুল নষ্ট হওয়ার অন্যতম একটি কারন হতে পারে আপনার চুল বাঁধার স্টাইল। কিছু চুল বাধার স্টাইল আপনার চুলেক শক্ত করে টেনে ধরে আছে মনে হয়- যেমন পনিটাইলস, কপালে টাইট হেয়ারব্যান্ড ব্যবহার এগুলো আপনার চুলের ক্ষতি করে। তাই চুল আগলাভাবে বাঁধুন।

চিল সিল্কি করতে যে সকল খাবার খাওয়া উচিত

আপনি কি খাচ্ছেন এর উপর আপনার চুলের সৌন্দর্য বা চুলের স্বাস্থ্য অনেকখানি নির্ভর করে। চুলের স্বাস্থ্য রক্ষায় ও চুল সিল্কি করতে যে সকল খাবার খাবেন-

আয়রন সমৃদ্ধ খাবার যেমন- বিটরুট, খেজুর, মটরশুঁটি, মসুর ডাল, পালংশাঁক, গুড় খান। বায়োটিন সমৃদ্ধ খাবার যেমন- ডিম, পালংশাক, বাদাম। সাইট্রাস ফল- কমলা, আমলা, চুন। পর্যাপ্ত ভিটামিন ডি এর জন্য ভোরের প্রথম প্রহরে কয়েক মিনিট সূর্যের আলোতে নিজেকে উন্মুক্ত করে রাখুন। এছাড়া ডিমের কুসুম, মাশরুম, এবং মাছ খান।

সর্বশেষ

আপনি যদি বলেন একদিনে বা দুই দিনে চুল সিল্কি করার উপায় কি। তাহলে সম্ভব না। উপরে যে টিপসগুলো দেওয়া হয়েছে সেগুলো অনুসরন করুন। সঠিক খাবার গ্রহণ করুন। পর্যাপ্ত ঘুমান, পানি পান করুন, চিন্তা মুক্ত থাকার চেষ্টা করুন, মুক্ত ও বিশুদ্ধ বাতাস গ্রহন করুন। তাহলে দেখবেন অল্প দিনের মধ্যে আপনার চুল সিল্কি হয়ে যাবে।

আরও পড়ুনঃ চুলের খুশকি দূর করার উপায়।

Exit mobile version